রবি. সেপ্টে. 25th, 2022

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে গবেষণায় আগ্রহী হোমিও চিকিৎসকরা

ডেস্ক রিপোর্ট:
বিশ্বব্যাপী করোনা ভাইরাস মহামারী আকারে ছড়িয়ে পড়েছে। সম্প্রতি আমাদের দেশেও এ ভাইরাসটির সংক্রমণ ঘটেছে। এই ভাইরাসে এখন পর্যন্ত ১৭ জন আক্রান্ত হয়েছে। এছাড়া একজনের মৃত্যুর ঘটনাও ঘটেছে।

করোনা ভাইরাসের উৎপত্তিস্থল চীনসহ বিভিন্ন দেশ ভাইরাসটি থেকে আরোগ্য লাভের ঔষধ আবিষ্কারের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। কিন্তু এখন পর্যন্ত কোনো দেশই সফলভাবে ঔষধ তৈরিতে সক্ষম হয়নি।

এদিকে পৃথিবীর অন্যতম চিকিৎসাব্যবস্থা হোমিওপ্যাথি ডাক্তারগণকে করোনা ভাইরাস রোগীর চিকিৎসায় পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য সুযোগ দেওয়া উচিৎ বলে মনে করছেন অনেকে। তাদের মতে, প্রকৃতধারার হোমিওপ্যাথিক ডাক্তারগণ করোনা ভাইরাস নিয়ে গবেষণা করলে এর চিকিৎসা ও মৃত্যু হার কমিয়ে আনা সম্ভব।

এ বিষয়ে হোমিওডাইজেস্ট ডটকমের নিয়মিত লেখক ও গবেষক ডা. শাহীন মাহমুদ বলেন- হোমিওপ্যাথির জনক মহাত্মা হ্যানিম্যান মহামারীর থেকে আরোগ্যলাভের জন্য আমাদের সুস্পষ্ট নির্দেশনা দিয়ে গেছেন। যে কিভাবে একটি মহামারীকের প্রতিরোধ করা যাবে। কিন্তু এখন দেখতে পাচ্ছি কিছু হোমিওপ্যাথি চিকিৎসক করোনা ভাইরাসের লক্ষণগুলো বিভিন্ন মাধ্যমে জেনে এর চিকিৎসা সম্বন্ধে ধারণা দিচ্ছেন কিংবা সম্ভাব্য ওষুধ সম্পর্কে ধারণা দিচ্ছে। এসব আবার ফেসবুকসহ বিভিন্ন স্যোশাল মিডিয়ায় শেয়ার করছে। মহামারী প্রতিরোধে মহাত্মা হ্যানিম্যান এভাবে বলেননি।

তিনি বলেন, ‘আমাদের হোমিওপ্যাথি ডাক্তারদের উচিৎ হ্যানিম্যানের যে সূত্রগুলো আছে সে অনুযায়ী চিকিৎসা করা।’ তিনি আশা প্রকাশ করেন প্রকৃত ধারার হোমিওপ্যাথি চিকিৎসায় গবেষণা করলে করোনা ভাইরাসের সুচিকিৎসা মিলবে। এজন্য তিনি সরকারে কাছে করোনা ভাইরাস মোকাবেলা হোমিওপ্যাথি ডাক্তারদের সুযোগ দেওয়ার জন্য আহ্বান জানান।