শনি. সেপ্টে. 24th, 2022

কাউনিয়ায় অসহায় বৃদ্ধার ধান কাটলো দুই সাংবাদিক

কাউনিযা রংপুর প্রতিনিধিঃ
ধানের ন্যাজ্য মূল্য ও শ্রমিক সংকটের কারণে সারাদেশেই কৃষকরা তাদের উৎপাদিত ফসল মাঠ থেকে ঘরে তুলতে পারছে না। এমন পরিস্থিতিতে পরেছে ধান চাষিরা। এ অবস্থার সংবাদ সংগ্রহ করতে উপজেলার বিভিন্ন গ্রামগঞ্জে ঘুড়ে দেখা গেছে শ্রমিক সংকট। এ অবস্থায় রংপুরের কাউনিয়া উপজেলার বালাপাড়া ইউনিয়নের গংজ্ঞানারায়ন গ্রামের বিধবা বেনদে বালার ধান পেকেগেলেও শ্রমিক ও আর্থিক সংকটে ভূকছিলেন। এমন অবস্থায় তার ধান কাঠলেন কাউনিয়া উপজেলার দুই সাংবাদকর্মী। তিন সন্তানের জননী বিধবা বেনদে বালার ১২ শতাংশ জমির পাকা ধান কাটেন তারা । বুধবার দুপুরের দিকে ধানের সংবাদ সংগ্রহের সময় উপজেলার বালাপাড়া ইউনিয়নের গংজ্ঞানারায়ন গ্রামের বিধবা বেনদে বলার জমিতে দেখা যায় এমনই এক দৃশ্য।
বেনদে বালার জমিতে কাউনিয়া উপজেলা প্রেস ক্লাবের যুগ্ন আহব্বায়ক জেটিভি নিউজ, দৈনিক বর্জ্রশক্তি ও দৈনিক মায়াবাজার পত্রিকার উপজেলা প্রতিনিধি নিতাই রায় ও দৈনিক আজকালের খবর, দৈনিক সাইফ ও উত্তরের সময়.কমের উপজেলা প্রতিনিধি জসিম সরকারসহ আরো কয়েক জন মহিলা শ্রমিক বিনা পারিশ্রমিকে তার ধান কাটেন, এসসময় অনেকেই ঘাড়ে গামছা নিয়ে ধান কাটতে নেমে পড়েন।
এ বিষয়ে জানতে চাইলে বৃদ্ধা বিধবা বেনদে বালা বলেন, মুই টাকার জন্যে ধান কাটার কামলা লাগাতে পারো নাই বাবা। মোর ধান পাকি গেইছে চিন্তায় আছনু কীভাবে ধান কাটিম। মোর এই অবস্থা দেখিয়া এই দুই সাংবাদিকসহ অনেকেই মোর জমির ধান কাটি দিছে।
সাংবাদিক নিতাই রায় জানান যে শ্রমিকের সংকটের কারনে বৃদ্ধা চাষি বেনদে বালা ধান কর্তনে হতাশ এই সংবাদ সংগ্রহ করতে এসে বেনদে বালা সর্ম্পকে জানতে পারি। তার ক্ষেতের ধান পেকে গিয়েছিল কিন্তু শ্রমিক সংকটের কারনে তিনি তার ধান কাটতে পারছিল না তার এ অবস্থা দেখে আমরা তার ধান কাটতে সহযোগিতা করতে পাশে দারিয়েছি।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।