রবি. সেপ্টে. 25th, 2022

নুসরাত হত্যা: রায়ের কপি হস্তান্তর

ফেনীর মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলার রায়ের কপি কারা কর্তৃপক্ষের কাছে হস্তান্তর করেছে আদালত।

এছাড়া জেলা কারা কর্তৃপক্ষ ফাঁসির আদেশপ্রাপ্ত ১৬ আসামিকে কনডেম সেলে পাঠাতে কারা মহাপরিদর্শককে চিঠি দিয়েছে।

ফেনী কারাগারের জেলার দিদারুল আলম জানান, সোমবার রাতে ফেনীর নারী ও শিশুনির্যাতন দমন ট্রাইবুনাল থেকে রায়ের মূল কপি জেল সুপার বরাবর হস্তান্তর করা হয়। আর তাদের কারাগারে কনডেম সেল নেই বলে সকালেই ফাঁসির আদেশপ্রাপ্ত আসামিদের কনডেম সেলে পাঠানোর জন্য কারা মহাপরিদর্শকের কাছে চিঠি পাঠানো হয়েছে।

ফেনীর সোনাগাজীর ইসলামিয়া সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসার আলিম পরীক্ষার্থী নুসরাতকে পুড়িয়ে হত্যার মামলায় ওই মাদ্রাসার সাবেক অধ্যক্ষ সিরাজ-উদ-দৌলাসহ ১৬ জনকে বৃহস্পতিবার মৃত্যুদণ্ড দিয়েছে আদালত। এছাড়া প্রত্যেক আসামিকে এক লাখ টাকা জরিমানা করেছে আদালত।

সিরাজ ওই মাদ্রাসার অধ্যক্ষ থাকার সময় নুসরাতকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ ওঠে তার বিরুদ্ধে। পরে তার পরিবার সিরাজের বিরুদ্ধে থানায় যৌন নিপীড়নের মামলা করে। মামলা তুলে না নেওয়ায় সিরাজের হুকুমে নুসরাতকে পুড়িয়ে হত্যা করা হয়।

আসামিপক্ষের আইনজীবী আহাসান কবির বেঙ্গল বলেন, আসামিদের স্বজনরা জাতীয় পরিচয়পত্র জমা দিয়ে আদালত থেকে রায়ের মূল কপি সংগ্রহ করেছেন। এই রায়ের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে আপিল করতে হলে তাদের এই কপি দরকার হবে।

উচ্চ আদালতে আপিলের ক্ষেত্রে জেলার আইনজীবীদের ভূমিকা নেই।

সাজাপ্রাপ্ত আসামিরা হলেন সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদরাসার সাবেক অধ্যক্ষ সিরাজ-উদ-দৌলা (৫৭), নূর উদ্দিন (২০), শাহাদাত হোসেন শামীম (২০), পৌর কাউন্সিলর ও সোনাগাজী পৌর আওয়ামী লীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মাকসুদ আলম ওরফে মোকসুদ (৫০), সাইফুর রহমান মোহাম্মদ জোবায়ের (২১), জাবেদ হোসেন ওরফে সাখাওয়াত হোসেন (১৯), আব্দুল কাদের (২৫), আবছার উদ্দিন (৩৩), কামরুন নাহার মনি (১৯), উম্মে সুলতানা ওরফে পপি ওরফে সম্পা ওরফে চম্পা (১৯), আব্দুর রহিম শরীফ (২০), ইফতেখার উদ্দিন রানা (২২), ইমরান হোসেন ওরফে মামুন (২২), সোনাগাজী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ও মাদ্রাসার সাবেক সহ-সভাপতি রুহুল আমিন (৫৫), মহিউদ্দিন শাকিল (২০) ও মোহাম্মদ শামীম (২০)।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।