শনি. জুন 25th, 2022

করোনাভাইরাসের উৎস তদন্তে চীনকে আরও সহযোগিতার আহ্বান ডব্লিউএইচও’র

বৃহস্পতিবার এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, “আমরা চীনকে আরও বেশি খোলামেলা, স্বচ্ছ এবং সহযোগী হওয়ার আহ্বান জানাই। সেখানে কী হয়েছিল, তা তুলে ধরতে কোভিড আক্রান্ত হওয়া এবং মারা যাওয়া লাখ লাখ মানুষের কাছে আমরা দায়বদ্ধ।”

ডব্লিউএইচও’র শীর্ষ বিশেষজ্ঞ মাইক রায়ান জানান, প্রস্তাবিত দ্বিতীয় ধাপের তদন্ত নিয়ে শুক্রবার গেব্রিয়াসুস ডব্লিউএইচও’র ১৯৪ সদস্য রাষ্ট্রকে ব্রিফিং দেবেন।

সাংবাদিকদের তিনি বলেন, “আমরা বিষয়টি নিয়ে আমাদের চীনা সঙ্গীদের নিয়ে কাজ চালিয়ে যাওয়ার অপেক্ষায় আছি। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান শুক্রবার সদস্যদের সঙ্গে বৈঠককালে সব পদক্ষেপের রূপরেখা তুলে ধরবেন।”

অনেক বিশেষজ্ঞই দাবি করে আসছিলেন, করোনাভাইরাস গবেষণাগার থেকে ছড়িয়েছে। কিন্তু প্রথম তদন্ত প্রতিবেদনে সেই সম্ভাবনা নেই বললেই চলে উল্লেখ করা হয়। কিন্তু তদন্তকারীদের এই বক্তব্যে সন্তুষ্ট হননি যুক্তরাষ্ট্রসহ অনেক দেশের বিজ্ঞানী ও গবেষকেরা।

বৃহস্পতিবার জার্মানির স্বাস্থ্যমন্ত্রী ইয়েন্স স্পান কথা বলেছেন গেব্রিয়াসুসের সঙ্গে। করোনাভাইরাসের উৎপত্তি জানতে আরও তথ্য প্রয়োজন বলে উল্লেখ করেন জার্মান স্বাস্থ্যমন্ত্রী। তদন্ত আবার চালু করতে দেওয়ার জন্য চীনের প্রতি আহ্বানও জানান তিনি।

চীনের উহান থেকে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসের উৎস সন্ধানে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রথম তদন্ত শেষ হয়েছিল ফেব্রুয়ারিতে। তখন বলা হয়েছিল, উহানের গবেষণাগার থেকে নয় বরং সম্ভবত বাদুড় থেকে করোনাভাইরাস এসেছে। বাদুড় থেকে অন্য প্রাণীর মাধ্যমে মানুষের শরীরে এই ভাইরাস প্রবেশ করেছে।

বৃহস্পতিবার জেনিভায় ডব্লিউএইচও প্রধান গেব্রিয়াসুস বলেন, করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার প্রথম দিনগুলোর মৌলিক তথ্যের অভাবে এই ভাইরাসের উৎস সন্ধানে তদন্তকাজ ব্যাহত হচ্ছে। ওই সময়কার রোগীদের তথ্য ডব্লিউএইচও’র প্রয়োজন।

কিন্তু প্রথম তদন্তকাজ চলাকালে চীন সেইসময়কার তথ্যগুলো ডব্লিউএইচও’র তদন্ত দলকে দেয়নি বলে জানান গেব্রিয়াসুস। উহানের গবেষণাগার সম্পর্কেও পরিষ্কার তথ্য দেওয়ার জন্য চীনকে আহ্বান জানান তিনি। কারণ, গবেষণাগারে দুর্ঘটনা ঘটতে পারে, চিকিৎসা পেশার মানুষ হওয়ার কারণে তার এটি জানা আছে বলে উল্লেখ করেন গেব্রিয়াসুস।

ওদিকে, চীন উহানের গবেষণাগার থেকে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার তত্ত্বকে বরাবরই ‘অবাস্তব’ বলে উড়িয়ে দিয়েছে এবং বিষয়টির ‘রাজনীতিকরণ’ করা হলে তদন্তকাজ ক্ষতিগ্রস্ত হবে বলেও বারবার জানিয়ে এসেছে।

শুক্রবার নিয়মিত এক নিউজ ব্রিফিংয়ে গ্রেব্রিয়াসুসের মন্তব্যের ব্যাপারে জিজ্ঞেস করা হলে চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ঝাও লিজিয়ান বলেন, কিছু তথ্যের ব্যক্তিগত সংশ্লিষ্টতা থাকায় সেগুলো কপি করা বা চীনের বাইরে যাওয়া সম্ভব নয়।